চ্যানেল ওম টিভি

সুনামগঞ্জে ফেইসবুকে গরুকে নিয়ে কমেন্টের জেড়ে হামলা ও মন্দির ভাংচুর !

সুনামগঞ্জ জেলার ছাতক উপজেলায় তাতীকোনা গ্রামে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইসবুকে একটি কমেন্টসকে কেন্দ্র করে সংখ্যালঘু হিন্দু পরিবারের উপর হামলা ও ভাংচুরের ঘটনা ঘটেছে। হামলাকারীরা ঘরবাড়ি ও মন্দির ভাংচুর করেছে। এতে আহত হয়েছে নারী-পুরুষসহ অন্তত ১১ জন। গরুর ছবি নিয়ে এই ঘটনার সূত্রপাত ।

গত রবিবার (১০ মে-২০) ইফতারের পর (সন্ধ্যায়) ৫০-৬০ জন মৌলবাদি অসৎ উদ্দেশ্যে পৌরসভার ৯ নং ওয়ার্ডের তাতীকোনা গ্রামে এ হামলার ঘটনা ঘটিয়েছে।

আহত তাপস দাসের বড় ভাই নুপুর দাস (৩৩) বাংলাদেশ মাইনরিটি ওয়াচ কে জানায় যে, তাতীকোনা গ্রামের বাসিন্দা তাপস ও আরিফের মধ্যে ফেইসবুকে একটি গরুকে নিয়ে কমেন্ট করাকে কেন্দ্র করে একটি বিচার বসার কথা ছিল, কিন্তু আসামিরা তার অপেক্ষা না করে হিন্দুদের বাড়িতে এলোপাথারি হামলা করে, এতে নারী পুরুষসহ অন্তত ১১ জন আহত হয়েছেন। সংঘর্ষের ঘটনার পর সংখ্যালঘু হিন্দু পরিবারের ঘরবাড়ি ও মন্দিরের আসবাবপত্র ভাংচুর করে মূর্তির গলা থেকে স্বর্ণের নেকলেছ নিয়ে যায় হামলাকারীরা। সর্বমোট ক্ষতির পরিমান ৪,০০,০০০/- লাখ টাকা ; তিনি উহার সুস্ঠ বিচার চান । ছাতক এলেকার এম, পি (আঃ লীগ ) মহিবুর রহমান মানিক বলেন বিএনপির লোক এই ঘটনা ঘটিয়েছে । আহতদের ছাতক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

এ ঘটনায় রবিবার গভীর রাতে তাপস দাস বাদী হয়ে হামলাকারী ২২ জনের নাম উল্লেখ করে অজ্ঞাতনামা আরো ২৫ জনকে আসামী করে ছাতক থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন। এ ঘটনায় এখনো কাউকে পুলিশ আটক করতে পারেনি।

ছাতক থানার অফিসার ইনচার্জ মোস্তফা কামালের সঙ্গে আমার কথা হয়, তিনি তাপস দাসের দায়েরকৃত মামলা নং ০৯ তারিখ ১১।০৫।২০ সাব ইন্সপেক্টর দেবাশিস কে তদন্ত ভার দিয়েছেন। মামলার তদন্তকারি অফিসার দেবাশিস বলেন মামলার তদন্ত চলছে ।ছাতক উপজেলার নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ গোলাম কবির ঘটনায় দুঃক্ষ প্রকাশ করেছেন ও আসামিদের গ্রেফতারের প্রক্রিয়া চলছে বলে ও জানান । এএসপি সার্কেল (ছাতক) বিল্লাল হোসেন বলেন আসামিরা পলাতক আছে – আসামিদের গ্রেফতারের প্রক্রিয়া চলছে ।

সোমবার (১১ মে) দুপুর ১টায় ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন সুনামগঞ্জের পুলিশ সুপার মো. মিজানুর রহমান। তিনিও আসামিদের গ্রেফতার করার পরামর্শ দিয়েছেন ।

বাংলাদেশ মাইনরিটি ওয়াচ এহেন সাম্প্রদায়িক হামলার তীব্র নিন্দা ও দুঃক্ষ প্রকাশ করেছেন অনতি বিলম্বে সকল আসামিদের গ্রেফতার করে আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির বাবস্তা গ্রহনের দাবী জানান ।

Leave A Reply

Your email address will not be published.