জমিজমা সংক্রান্ত বিরোধের জেড়ে হিন্দু বাড়িতে হামলায় ৩ নারীসহ আহত ৬

বরিশালের উজিরপুর উপজেলার ওটরা ইউনিয়নের কেশবকাঠী গ্রামে জমিজমা সংক্রান্ত বিরোধকে কেন্দ্র করে একটি হিন্দু বাড়িতে হামলা চালিয়ে ৩ নারী সহ ৬ জনকে গুরুতর আহত করার অভিযোগ পাওয়া গেছে৷ আহতদের মধ্যে মৃত নিরঞ্জন বাড়ৈর স্ত্রী ইদ্রানী বাড়ৈ শোভা (৬৫), তার ছেলে গৌরাঙ্গ বাড়ৈ (৪৫), নিত্যানন্দ বাড়ৈ (৪০), নিকুঞ্জ বাড়ৈর স্ত্রী কল্পনা রানী বাড়ৈ (৪৫), নিত্যানন্দ বাড়ৈর স্কুল পড়ুয়া কন্যা পুঁজা রানী বাড়ৈ (১৪)কে উজিরপুর উপজেলা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এ ঘটনা আজ মঙ্গলবার ( ৩১ মার্চ), বেলা সারে দশটায় উপজেলার কেশবকাঠি গ্রামের বাড়ৈ বাড়িতে ঘটেছে।

আহতদের অভিযোগে জানাগেছে স্থানীয় কিছু প্রভাবশালী ভুমিদস্যু মোতাহার মল্লিক ও শহিদ মল্লিকের নেতৃত্তে জিয়াউর রহমান টুটুল, আলমগীর মল্লিক, রুবেল মল্লিক,হাকিম মল্লিক সহ আরো কিছু সন্ত্রাসীরা অবৈধভাবে গায়ের জোরে বাড়ৈর বাড়ির পুকুর থেকে জোর করে মাটি কেটে নিয়ে বাড়ৈ বাড়ির ধানের জমি দখল করে মাটি দিয়ে ভরাট করতে থাকে।

এ সময় মৃত নিরঞ্জন বাড়ৈর স্ত্রী শোভা রানী সহ তার ছেলে মেয়ে নাতি নাতনি সহ ভুমিদস্যুদের বাধা দিলে তারা অতর্কিত ভাবে হিন্দু বাড়িতে হামলা চালিয়ে উল্লেখিতদের আহত করে। এ ঘটনায় উজিরপুর থানা পুলিশকে জানালে এস আই কমল দে ঘটনাস্থল ও হাসপাতালে ভর্তি আহতদেরকে পরিদর্শন করেন। এ ব্যাপারে ইন্দ্রানী বাড়ৈ শোভার পরিবারের পক্ষ থেকে রাতেই থানায় এজাহার দায়েরের প্রকৃয়া চলছে বলে জানা গেছে৷

Leave A Reply

Your email address will not be published.